সোমবার, ২২ জুলাই ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

১০ কোটি টাকা উদ্ধার ও ড.কামালকে নিয়ে সরকারের সব নাটকই ফ্লপ,দিশেহারা হাসিনা



তাজউদ্দীন:

আওয়ামী সরকারের মিথ্যা নাটক আর দেখতে চায়না জাতি। হাসিনা ও তার দোসরদের সব নাটকই দেশবাসীর জানা। বিএনপি ও ঐক্যফ্রন্টের সাথে নীতিগতভাবে পরাজিত হয়ে এখন আবার নাটক মঞ্চস্থ শুরু করেছে হাসিনা।

বুধবার সারাদেশে বিরোধী দলের উপর সরকারীদলের হামলার ঘটনা ও ভিডিও সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে খুনী বাহিনী র্যাবকে দিয়ে ১০ কোটি টাকার মিথ্যা নাটক তৈরী করে ফেঁসে যায় সরকার। এই ঘটনায় আবারো প্রশ্নবিদ্ধ হয় দুশ্চরিত বেনজিরও র্যাব বাহিনী।
হাসিনার পোষা মিডিয়া এই র্যাবের নাটকটি বড় করে প্রচার করলেও সামাজিক মাধ্যমে তার উল্টো রিএ্যাকশন প্রকাশ পায়। সবাই ১০ কোটি টাকার ঘটনাকে রাষ্ট্রীয় নাটক বলে প্রচার করে।

এদিকে র্যাবের নাটক ফ্লপ হবার পর নতুন করে কামাল হোসেন হত্যার ফোন রেকর্ড ফাঁসের আরেকটি নাটক নির্মাণ করে হাসিনা সরকার। এই নাটকও জনগন খায়নি। কারণ নির্বাচন প্রচারনা শুরু হবার পর একের পর এক হামলার শিকার হচ্ছে বিরোধী নেতা কর্মিরা। আর প্রতিটি হামলা করেছে সরকারদলীয় ক্যাডার ও পুলিশ র্যাব বাহিনী। সেখানে শীর্ষ বিরোধীনেতাকে নিজেরাই হত্যা করে রাজনীতি করার মত নষ্ট রাজনীতি বিএনপি নয় করবে আওয়ামীলীগ বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ রা এমন মন্তব্য করেন।

একটি সুত্র বলছে হাসিনা ড. কামাল হোসেনকে হয় গৃহবন্দি বা ছাত্রলীগ দিয়ে হামলা করাতে এই নাটক সাজিয়েছে। ঐক্যফ্রন্টের কাছে নির্বাচনে পরাজয়ের আশঙ্কায় সরকার এসব নাটক করছে বলে টিভি টকশোতে এক অতিথি বলেন। সরকারের সম্ভাব্য সব নাটক সম্পর্কে জনগন সজাগ আছে বলেও তিনি মন্তব্য করেন।

পুলিশ কামাল হোসেনের নিরাপত্তার নতুন নাটক করতে দুপুরে তাঁর চেম্বারে গেলে ড.কামাল সাফ জানিয়েদেন এসব নাটক করে অবৈধ হাসিনা সরকার ও তার অবৈধ মিত্রদের শেষ রক্ষা হবে না। দশ বছর ধরে জনগন আওয়ামী সরকারের বহু ভাওতাবাজির নাটক দেখেছে ৩০ ডিসেম্বর জনগন এবার নাটকের জবাব দেবে।

ঐক্যফ্রন্টের এক নেতা সাংবাদিকদের বলেন,কথিত ফোনালাপের শওকত নাকি বিএনপি নেতা। তিনি হত্যার সব প্লান জানেন বলে দাবী করেছেন, তাহলে তাকে আগে এ্যারেস্ট করা হোক। সে কীভাবে তথ্য পেলো তার সূত্র কেন খুঁজছে না গোয়েন্দারা?

তিনি বলেন সেইফটির নামে কামাল সাহেবকে গৃহবন্দি করে নির্বাচন থেকে মাইনাস করার এটি হাসিনার নতুন কৌশল। হাসিনার কোন কৌশল কাজে আসবে না বলে তিনি মত দেন।